• বৃহস্পতিবার , ১৩ জুন ২০২৪

সেই নাজমুলের আত্মসমর্পন


প্রকাশিত: ১০:৫৮ পিএম, ১৩ মে ২৪ , সোমবার

নিউজটি পড়া হয়েছে ৩৪ বার

 

স্টাফ রিপোর্টার : নিজের সাজা অন্যজনকে দিয়ে খাটানোর ঘটনায় সাত বছরের দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি যুবলীগ নেতা নাজমুল হাসান বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণ করেছেন। সোমবার ঢাকার অষ্টম অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আমিনুল ইসলামের আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন নাজমুল হাসান। শুনানি শেষে আদালত জামিন আবেদন নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

তবে সংশ্লিষ্ঠরা বলছেন, তদবিরে নিজেকে বাঁচাতে জেলে গেছেন সেই ধুরন্ধর যুবলীগার নাজমুল।সংশ্লিষ্ট আদালতের বেঞ্চ সহকারী মো. মিলন এ তথ্য জানান।বদলি সাজা খাটানোর ঘটনা নিয়ে গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ আদালতের নজরে আনা হলে রোববার নাজমুল হাসানকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে আত্মসমর্পণের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট।

২০২০ সালের আগস্ট মাসে উত্তরার একটি বাসায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ ফেনসিডিল ও গাঁজাসহ আনোয়ার হোসেন নামে একজনকে আটক করে। সেই সময় পালিয়ে যায় মামলার মূল আসামি ঢাকার উত্তরার ৫৪ নম্বর ওয়ার্ড যুবলীগ নেতা নাজমুল হাসান।

এ ঘটনায় দুজনকে আসামি করে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর মামলা করে। বিচারে অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায় পলাতক নাজমুল হাসানকে সাত বছরের কারাদণ্ড দেন নিম্ন আদালত।এ রায়ের পর নাজমুলের পরিচয় দিয়ে আদালতে আত্মসমর্পণ করে জেল খাটেন মিরাজুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তি। পরে নিম্ন আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করে ১১ দিন জেল খেটে জামিনে বের হয়ে যান তিনি। পরে এ ঘটনা নিয়ে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হয়।