• শুক্রবার , ১৯ জুলাই ২০২৪

ভোট প্রতিহতে জেল ৭ বছর


প্রকাশিত: ১২:১৭ এএম, ২৪ ডিসেম্বর ২৩ , রোববার

নিউজটি পড়া হয়েছে ৩০ বার


আমরা চরম নিরপেক্ষ কাউকে রেহাই নয়-ইসি আনিসুর-

 

স্টাফ রিপোর্টার : নির্বাচন কমিশনার (ইসি) আনিসুর রহমান জানিয়েছেন, সাবধান ভোট প্রতিহত হলেই জেল হবে ৭ বছর। ভোটে না আসার অধিকার রাজনৈতিক দলের আছে। তবে অন্যকে ভোট দিতে বাধা দিলে কারাদণ্ডসহ অন্যান্য শাস্তির বিধান রয়েছে আইনে। সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার (ইসি) আনিসুর রহমান। শনিবার দুপুরে আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে তিনি একথা বলেন।

ইসি আনিসুর বলেন, কেউ ভোটে নাও আসতে পারেন, ভোট দিতে নাও পারেন, কিন্তু ভোট প্রতিহত করার অধিকার কারও নেই। অন্যকে প্রতিহত করলে আমরা এবার সংশোধনী এনেছি সাত বছর পর্যন্ত জেল বা অর্থদণ্ড করার জন্য। পুলিশ, ম্যাজিস্ট্রেট সবাইকে বলেছি, আপনারা যথাযথ ব্যবস্থা নেবেন, কোনো কার্পণ্য যেন না হয়। কাজেই কোনো ব্যত্যয় হবে না।

তিনি বলেন, কাউকে কোনোরকম ছাড় দেয়া হচ্ছে না; বড়-ছোট সবাইকে একইভাবে দেখছি। সেক্ষেত্রে আমরা নিরপেক্ষ অবস্থান নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। মাঠে নিরপেক্ষ অবস্থান রয়েছে আমাদের; কোনো শঙ্কা, ভয়ভীতি বা আনুকূল্য নেই। আমরা চরম নিরপেক্ষ বলে কেউ রেহাই পাবে না।

তিনি আরও বলেন, দুই-এক দিনের মধ্যে প্রার্থীদের আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে৷ সেইসঙ্গে মাদারীপুর-৩ আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থকের নিহত হওয়ার ঘটনায়ও ব্যবস্থা নেয়া হবে। মাঠে কর্মকর্তাদের নিরপেক্ষ থাকতে বলা হয়েছে। অনিয়ম নিয়ে প্রশাসনে রদবদল চলছে; এটা অব্যাহত থাকবে।

স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থক নিহত হওয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, যে ঘটনা শুনলাম, এটা কিন্তু সকালবেলা তিনি তার বাড়ি থেকে কোনো একটা জায়গায় যাচ্ছিলেন, পথিমধ্যে তাকে আক্রমণ করা হয়েছে। তারা উভয়েই একই বংশের, তাদের মধ্যে আত্মীয়তা রয়েছে। কিছুদিন আগেও তাদের মধ্যে একটা ঘটনা ঘটেছিল; সে কারণেই হয়েছে, নাকি নির্বাচনের কারণে- এ বিষয়গুলো আমরা খতিয়ে দেখছি। ‘নির্বাচনের কারণে অনেকে ব্যক্তিগত শত্রুতার বিষয়টিও সামনে আনছেন। আমরা নিরপেক্ষতার সঙ্গেই বিষয়গুলো দেখব। এখানে যে কারও মৃত্যুই অনাকাঙ্ক্ষিত। এভাবে মৃত্যু, একটা মৃত্যুও আমরা চাই না; এজন্য যথেষ্ট গুরুত্ব দিচ্ছি। একটু সময় দেন, বাকিটা আপনারা দেখবেন।

নির্বাচন কমিশনের এ কর্মকর্তা বলেন, এরই মধ্যে আমি বিভিন্ন জেলা ঘুরে এসেছি। ভোটের মাঠে আচরণবিধি বাস্তবায়ন হচ্ছে। আজকেও আমরা কিছু কঠোর সিদ্ধান্তের বিষয়ে আলোচনা করেছি, সেখানে আরও কিছু তথ্য চেয়েছি। আগামীকাল সেসব তথ্য পেলে দেখবেন যে, আরও কঠোর সিদ্ধান্তে চলে যাব। একজন স্বতন্ত্র প্রার্থীর সমর্থক মারা গিয়েছেন। আমরা কঠোর সিদ্ধান্তে চলে যাবো।